রাজসিক বিদায়ের কিছুই জানতেন না মাশরাফি

বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে এখন পর্যন্ত সেরা অধিনায়কের তকমাটা মাশরাফি বিন মুর্তজার নামের পাশেই। দীর্ঘ ১৯ বছরের ক্যারিয়ারের শেষ প্রান্তে দাঁড়িয়ে ঘোষণা দিয়েছেন ছয় বছর ধরে পালন করা অধিনায়কের দায়িত্ব। বিদায় বেলায়ও মাথা উঁচিয়ে ছেড়েছেন মাঠ। অধিনায়ক হিসেবে শেষ ম্যাচ জেতার পর সতীর্থদের কাছ থেকে পেয়েছেন দারুণ সম্মান, ভালোবাসায় মোড়ানো কিছু মুহূর্ত। তবে এতো কিছুর জন্য মোটেও প্রস্তুত ছিলেন না মাশরাফি।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ম্যাচ শেষে মাশরাফিকে কাঁধে নিয়ে ঘোরেন তামিম ইকবাল, পাশ থেকে তাকে ঘিরে ধরে বাকি সতীর্থরা। তার প্রতি ভালোবাসার বহিঃপ্রকাশ করতে গিয়ে স্কোয়াডের সব সদস্য গায়ে চাপান মাশরাফির নাম ও নম্বর সম্বলিত জার্সি। খানিক বাদেই বোর্ড সভাপতি ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা থেকে তুলে দেওয়া হয় ক্রেস্টও।

তবে এত আয়োজনের কিছুই জানতেন না খোদ মাশরাফি, ‘আজকে যেটা হয়েছে আমি সেটার জন্য প্রস্তুত ছিলাম না। প্রস্তুত থাকলে হয়তোবা অন্যরকম নিজের কাছে মনে হত।’

আরো পড়ুন: স্ত্রীর ফাইনাল দেখতে না খেলেই দেশে ফিরেছেন স্টার্ক!

অধিনায়ক মাশরাফি মাঠ থেকে বিদায় নিয়েছেন, একজন পেসার মাশরাফিও কি মাঠ থেকেই বিদায় নিবেন? এমন প্রশ্নে দেশের ক্রিকেটের গৌরবময় এক অধ্যায় রচনা করে দিয়ে যাওয়া ক্যাপ্টেন ফ্যান্টাসটিকের কণ্ঠে পুরোনো সুর, ‘আশা আছে, এটাতো সবাই চিন্তা করে। তবে আমি আগেও আপনাদের সামনে বলেছি যে এটা আমার খুব বেশি চিন্তার জায়গা না। অনেকেই বলে মাঠ থেকে বিদায় নিব, কি হবে? মাঠ থেকে বিদায় নিলে কি হয়? শচীন টেন্ডুলকার এত বড় ক্রিকেটার মাঠ থেকে বিদায় নিল কি হয়েছে? আপনারা হয়তো মনে রাখেন শচীন কীভাবে বিদায় নিল মাঠ থেকে। এর বেশি কি হয়? বিদায়তো বিদায়ই, সেটা ঘর থেকে নিই আর মাঠ থেকে নিই।’

গত বিপিএলে ঢাকা প্লাটুনের অধিনায়ক হয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসে অবসর ইস্যুতে মাশরাফি বলেন, ‘আমি নিজেকে কখনো এতো প্রাধান্য দিইও না। যে আমাকে মাঠ থেকে বিদায় দিবেন সবাই, ফুলের তোড়া নিয়ে আসবে; অপ্রয়োজনীয়। আমি যেরকম আছি ভালো আছি, খুশি আছি।’

চস/আজহার

শেয়ার করুন

The Post Viewed By: 108 People

Chattogram Somoy

চট্টগ্রাম থেকে পরিচালিত চট্টগ্রাম সময় একটি আধুনিক নিউজ পোর্টাল। ২৪ ঘন্টা খবরের সন্ধানে ছুটে চলা একদল সংবাদদাতা নিয়ে আমাদের যাত্রা শুরু হয়েছে ২০১৯ এর জুলাইয়ে। কোনো একটা নির্দিষ্ট দিক নয়, চট্টগ্রাম সময় কাজ করছে প্রতিটা দিক নিয়ে। আমাদের ভবিষ্যৎ পথচলায় আপনাদের সাথী হিসেবে পেতে চাই।