মাঠেই শাস্তি বলে লালা ব্যবহার করলে

113

বলে লালার ব্যবহার নিষিদ্ধ করেছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থা (আইসিসি)। লালা কিংবা স্লেষ্মার মাধ্যমে এক শরীর থেকে অন্য শরীরে সংক্রামিত হতে পারে করোনাভাইরাস। করোনা পরবর্তী ক্রিকেট শুরুর আগে এমন সিদ্ধান্ত এলো।

ক্রিকেট বল চমকাতে লালার ব্যবহার নিষিদ্ধ করে দেয়ার সুপারিশ করেছিল অনিল কুম্বলে নেতৃত্বাধীন আইসিসি ক্রিকেট কমিটি। পরিবর্তে ঘাম ব্যবহার করা যেতে পারে বলে জানানো হয়েছিল ১৬ সদস্যের ওই কমিটি। সেই সুপারিশকে প্রাধান্য দিয়েছে আইসিসি’র চিফ এগজিকিউটিভ কমিটি।

দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতা। শুরুতেই ক্রিকেটারদের জন্য নতুন এই নিয়মের সঙ্গে মানিয়ে নিতে সমস্যা দেখা দিতে পারে। ভুলে হয়ত মাঠে লালার ব্যবহার করতেই পারেন অনেকে। এমন পরিস্থিতিতে মাঠের দায়িত্বে থাকা আম্পায়ার ওই খেলোয়াড় এবং দলকে সতর্ক করতে পারবেন।

নতুন নিয়ম অনুযায়ী, ইনিংসে প্রতি ফিল্ডিং দলকে দুটি করে সতর্ক বার্তা দেয়া হবে। তারপরও যদি ভুল করে সেক্ষেত্রে শাস্তি স্বরূপ ব্যাটিং দলকে পাঁচ রান উপহার দেয়া হবে।

আইসিসি জানিয়েছে, কেউ ভুল করে বলে লালা লাগিয়ে ফেললে, তা পরিষ্কার করার দায়িত্ব আম্পায়ারকে নিতে হবে।

এদিকে বিদেশী আম্পায়ারের বদলে আইসিসি স্বীকৃত স্থানীয় আম্পায়ারদের দিয়ে ম্যাচ পরিচালনার পরিকল্পনা নিয়েছে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থাটি।

ইনিংসে প্রতিটি দলের জন্য অতিরিক্ত অসফল ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম (ডিআরএস) যোগ করা হচ্ছে। সেক্ষেত্রে টেস্ট ও সীমিত ওভারের ক্রিকেটের প্রতি ইনিংসে অসফল রিভিউ’র সংখ্যা বাড়িয়ে যথাক্রমে তিন ও দুই করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আইসিসি।

আইসিসির মতে, মাঠে অভিজ্ঞ আম্পায়ারের সংখ্যা কমতে পারে। তাই স্থানীয় তথা তুলনামূলক অনভিজ্ঞ আম্পায়ারদের ভুল হতে পারেন। বিষয়টি বিবেচনা করে ক্রিকেটারদের অতিরিক্ত সুযোগ দিতেই এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হলো।

চস/আজহার