বাঘা যতীন ভাস্কর্য ভাঙচুরে রিমান্ডে তিনজন

35
ads here
কুষ্টিয়ায় ব্রিটিশ বিরোধী নেতা বাঘা যতীনের আবক্ষ ভাস্কর্য ভাঙচুরে জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেপ্তার তিনজনকে তিনদিন রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি পেয়েছে পুলিশ।

সোমবার দুপুরে কুষ্টিয়ার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক সেলিনা খাতুন রিমান্ডের আবেদনের শুনানি করে তিনদিন রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

ads here

এরা হলেন- কয়া ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি কয়া ফুলতলা গ্রামের মহিরুদ্দিন সেখের ছেলে আনিসুর রহমান আনিছ (৩৫), নাসির উদ্দিনের ছেলে সবুজ হোসেন (২০) ও বুদ্দিন মণ্ডলের ছেলে হৃদয় হোসেন (২০)।

কুমারখালী থানার ওসি মজিবুর রহমান বলেন, বাঘা যতীনের আবক্ষ ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে কয়া মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষের দায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তার তিনজনকে আদালতে হাজির করে সাতদিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। আদালত রিমান্ড শুনানি শেষে তিনদিনের করে আবেদন মঞ্জুর করেন।

এর আগে শুক্রবার রাতে কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার কয়া মহাবিদ্যালয় চত্ত্বরে বাঘা যতীনের ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে।

ব্রিটিশ বিরোধী আন্দোলনের বিপ্লবী সংগঠন ‘যুগান্তর দলে’র নেতা যতীন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায়ের জন্ম ১৮৭৯ সালে কুষ্টিয়া জেলার কুমারখালীতে। খালি হাতে বাঘ মারার কারণে তিনি ‘বাঘা যতীন’ নাম পান। ১৯১৫ সালের ৯ সেপ্টেম্বর ব্রিটিশ পুলিশের সঙ্গে গোলাগুলিতে নিহত হন যতীন। সে সময় তার বয়স ছিল মাত্র ৩৬ বছর।

 

চস/এএম

ads here