করোনার নতুন ধরন ঠেকাতে জল স্থল আকাশ পথ বন্ধ করল সৌদি-ওমান-কুয়েত

46
ads here
করোনাভাইরাসের নতুন ধরন আসার পর সব আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বন্ধ করে দিল সৌদি আরব, ওমান ও কুয়েত। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানায়, সৌদি আরব, কুয়েত ও ওমান তাদের সীমান্ত আন্তর্জাতিক যাত্রীদের জন্য পুরোপুরি বন্ধ করে দিয়েছে।

‘বিশেষ কিছু ক্ষেত্র ছাড়া’ সকল আন্তর্জাতিক ফ্লাইট এক সপ্তাহের জন্য স্থগিত করার ঘোষণা দেয় সৌদি আরব। সৌদি বার্তা সংস্থা এসপিএ সোমবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এক সংবাদে এ কথা জানায়, যা দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটেও প্রকাশ করা হয়।

ads here

এতে বলা হয়, একটি নতুন ধরনের করোনাভাইরাস বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ছে। এ খবরের ভিত্তিতেই আন্তর্জাতিক ফ্লাইট স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। তবে বিদেশি যেসব বিমান সংস্থা এখন বর্তমানে সৌদি আরবে অবস্থান করছে তারা তাদের নিজ দেশের উদ্দেশে ছেড়ে যেতে পারবে।

এ ছাড়া আগামী এক সপ্তাহের জন্য সকল স্থল ও সমুদ্রবন্দর দিয়ে সৌদি আরবে প্রবেশও স্থগিত থাকবে। এই নিষেধাজ্ঞা বৃদ্ধি পেয়ে আরো এক সপ্তাহ বাড়তে পারে।

একইভাবে কুয়েত সোমবার স্থানীয় সময় রাত ১১টা থেকে দেশটির সঙ্গে সব আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বাতিল করেছে বলে মিডল ইস্ট আই জানিয়েছে।

দেশটির বেসরকারি বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের মুখপাত্র সাদ আল-ওতাইবি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ১ জানুয়ারি পর্যন্ত এ নিষেধাজ্ঞা থাকবে। একই সময় পর্যন্ত বন্ধ থাকবে স্থল সীমানা ও সমুদ্র বন্দর।

মঙ্গলবার থেকে সমুদ্র, আকাশ, ও স্থলপথ বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে ওমানও। সৌদি আরবের সঙ্গে স্থল সীমানা রয়েছে কুয়েত এবং ওমানের। তিন দেশই উপসাগরীয় সহযোগিতা কাউন্সিলের (জিসিসি) সদস্য।

এদিকে যুক্তরাজ্যের সঙ্গে ফ্লাইট বাতিল করেছে ৪০টি দেশ। যার মধ্যে আছে, কানাডা, জার্মানি, নেদারল্যান্ডস, বেলজিয়াম, ইতালি, তুরস্ক। ভারতও একই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

 

 

 

চস/এএম

ads here