সিএনজি থেকে ছুড়ে ফেলা সেই শিশুটির ঠাঁই হলো সরকারী শিশু পরিবারে

176
সি
ads here

আনুমানিক ৭/৮ মাস বয়সী এক কন্যা শিশুকে কে বা কারা একটি কবরস্থানের সামনে ছুড়ে ফেলে পালিয়ে গিয়েছিলো গত মাসে। গত ১৭ ফেব্রুয়ারি সোমবার দুপুরে খুলশী থানাধীন পলিটেকনিক্যাল কলেজ এলাকা সংলগ্ন একটি কবরস্থানের পাশ থেকে অজ্ঞাত ওই শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়ছিলো। এরপর শিশুটিকে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিলো।

ওই ঘটনাটির প্রত্যক্ষর্দশী ছিলেন খুলশী থানার এ এসআই হিরণ। তিনি বলেছিলেন, আমি একটি স্কুলের বাইরে এসএসসি পরীক্ষার ডিউটি পালন করছিলাম। হঠাৎ সামান্য দূরে লক্ষ্য করি একটি কবরস্থানের সামনে একটি সিএনজি দাঁড় করিয়ে গাড়ি থেকে কিছু একটা ফেলে দিতে। আমি দৌড়ে ঘটনাস্থলে গেলে ততক্ষণে সিএনজিটি পালিয়ে যায়। তখন ঘটনাস্থল থেকে ওই শিশুটিকে উদ্ধার করি। পরে বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানিয়ে শিশুটিকে দ্রুত চমেক হাসপাতালে নিয়ে আসি। তিনি আরও বলেন, শিশুটিকে যখন উদ্ধার করি সে শুধুমাত্র নিঃশ্বাস নিচ্ছিল। তেমন নড়াচড়া ছিল না, শুধু ফ্যালফ্যাল করে তাকিয়েছিল।
ads here

আরো পড়ুন: ৩১ মার্চ পর্যন্ত দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ

এতোটুকু পর্যন্ত অনেকেই জানি। কিন্তু শিশুটির বর্তমান খবর হয়তো অনেকেই জানেন না। অনেকের প্রশ্ন এখন কেমন আছে সেই শিশুটি।

অজ্ঞাত নামা শিশুটি শারীরিক ভাবে এখন সুস্থ। বর্তমানে শিশুটিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল হতে লালন পালনের জন্য সরকারী শিশু পরিবার (বেবি হোম) এ প্রেরণ করা হয়েছে। এসময় উপস্থিত ছিলেন রোগী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও সমাজসেবা অফিসার অভিজিৎ সাহা, খুলশী থানার এ এসআই হিরণ এবং চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শিশু আইসিইউ বিভাগের ডাক্তার ফাতেমা হক সুইটি, ডাক্তার অরূপ দত্ত বাপ্পী ও সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের ডাক্তার এবং নার্স বৃন্দ।

https://www.facebook.com/chattogramsomoy/videos/3009903052399995/

চস/আজহার

ads here