ভোলায় হোটেলে আটকে রেখে গৃহবধূকে ধর্ষণ

74
  |  মঙ্গলবার, অক্টোবর ৬, ২০২০ |  ২:১৩ অপরাহ্ণ
ads here

ভোলার চরফ্যাশনে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে আবাসিক হোটেলে আটকে গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
সোমবার বিকেলে ধর্ষিতা বাদী হয়ে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের এ অভিযোগ দায়ের করেন। আসামিরা হলেন-সোহাগ, পারভেজ ও মোতালেব। এ ঘটনায় প্রধান আসামি সোহাগসহ তিন জনকে হোটেল থেকে আটক করেছে পুলিশ।

ads here

জানা গেছে, গত ৩ অক্টোবর সোহাগ বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ফুসলিয়ে হোটেলে নিয়ে আটকে রেখে ধর্ষণ করে। এ সময় সোহাগের অপর দুই সহযোগী পারভেজ ও মোতালেব সহায়তা করে।

ওই নারীর অভিযোগ, বিয়ে করবে বলে তাকে ফুসলিয়ে হোটেলে নিয়ে যায় সোহাগ। হোটেলের ম্যানেজার মোতালেব ও পারভেজ সহায়তা করেন সোহাগকে। এই ঘটনা কাউকে না জানানোর জন্য হুমকি দেয়। তবে গৃহবধূ কৌশলে হোটেল থেকে পালিয়ে থানার গিয়ে অভিযোগ করেন।

চরফ্যাশন থানার ওসি মনির হোসেন বলেন, গৃহবধূর সঙ্গে মোবাইলে সোহাগের প্রেমের সম্পর্ক হয়। পরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে হোটেলে নিয়ে আসার পরে এই ঘটনা ঘটে। পরে ধর্ষণের শিকার গৃহবধূ থানায় অভিযোগ দিলে সোহাগসহ তার অপর দুই সহায়তাকারীকে আটক করা হয়েছে।

চস/আজহার

ads here